ব্রেকিং:
প্রভাবশালীর দাপটে বালু ফেলে নদী দখল টানা দ্বিতীয় বারের মত শ্রেষ্ঠ শিক্ষক জান্নাতুল রেলস্টেশনের মর্যাদা রক্ষায় ১১ দাবি ইউএনও উদ্যোগে ঘর পেল অসহায় পরিবার চিকিৎসকদের অক্লান্ত পরিশ্রম, রক্ত দিলেন সাধারণ মানুষ পৌরসভা নির্বাচনে জয়ীদের শপথ অনুষ্ঠিত ট্রেন দুর্ঘটনায় অপমৃত্যুর মামলা ট্রেন দুর্ঘটনার জেলা প্রশাসনের তদন্ত শুরু ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহত সবার পরিচয় মিলেছে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত সরদার নিহত ভোরে মসজিদের মাইকে আসে সহযোগিতার ঘোষণা একনজরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ট্রেন দুর্ঘটনা বিদ্যুৎ বিল কমিয়ে আনার কার্যকরী উপায় আয়কর মেলা শুরু বৃহস্পতিবার জামালপুরে ফেরীতে পার হয় ট্রেন, অবাক বিশ্ব নিমিষেই দূর করুন ছারপোকা! কোরআনে বর্ণিত নবী-রাসূল (আ.)-দের বিশেষ বিশেষ দোয়া ইমার্জিং এশিয়া কাপের ট্রফি উন্মোচন এখনো বেঁচে আছেন হুমায়ূন আহমেদ ‘প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটাক্ষ করলে ক্ষমা করবে না জনগণ’

বুধবার   ১৩ নভেম্বর ২০১৯   কার্তিক ২৯ ১৪২৬   ১৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

৫২৫

সাজাপ্রাপ্ত আসামী পেলো সরকারী ঘর!

প্রকাশিত: ৪ নভেম্বর ২০১৯  

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে এক সাজাপ্রাপ্ত আসামীর সরকারী দুর্যোগ সহনীয় প্রকল্পের ঘর বরাদ্ধ পাওয়ায় অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। উপজেলার মাসিক আইন-শৃংখলা সভায় দুর্যোগ সহনীয় ঘর বরাদ্দের তালিকায় অনিয়মের এই অভিযোগ তোলা হয়েছে।

রতনপুর ইউনিয়ন পরিষয়দের চেয়ারম্যান মো. রুহুল আমিন অভিযোগ করেন, চলতি অর্থবছরে নবীনগর উপজেলায় ২১টি ইউনিয়নে সরকারের ‘জমি আছে ঘর নেই ’ প্রকল্পের আরও ২৪টি ঘর বরাদ্দ দেওয়া হয়। এ তালিকায় রতনপুর ইউনিয়নের খাগাতোয়া গ্রামের মৃত সিদ্দিক খানের ছেলে আলম খানের নাম অন্তর্ভূক্ত করা হয়।

সভায় চেয়ারম্যান অভিযোগ করেন, আলম খান একজন ব্যবসায়ী। তার জমি আছে, ঘরও আছে। সে সমাজের একজন অপরাধী ব্যক্তি হিসেবে চিহ্নিত।

অভিযোগকারী প্রশ্ন করেন, সে কিভাবে এ তালিকায় অন্তর্ভূক্ত হয়?
এই অভিযোগের সূত্র ধরে বৃহস্পতিবার সরেজমিনে এলাকায় গিয়ে অভিযোগের সত্যতা পাওয়া যায়।

দেখা যায়, আলম খানের অংশের বাড়িতে তার একটি বড় দো-চালা ঘর রয়েছে। তিনি ডিস লাইনের ব্যবসা করেন।
স্থানীয়রা জানায়, সে হত্যা মামলার সাজাপ্রাপ্ত (বর্তমানে জামিনপ্রাপ্ত) একজন আসামি। তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন অপরাধের মামলা রয়েছে।

এ ব্যাপারে আলম খান বলেন, আমি একটি ঘর পাওয়ার বিষয়টি শুনেছি তালিকায় অন্তর্ভূক্ত হয়েছে। আমি একটি মামলায় জামিনে আছি।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাসুম বলেন, গত বুধবার (৩০ অক্টোবর) অনুষ্ঠিত আইন-শৃংখলা সভায় চেয়ারম্যানের উপস্থাপিত অনিয়মের অভিযোগের বিষয়টি তদন্তপূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের সিদ্ধান্ত হয়।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর