ব্রেকিং:
আজিজুল হকের মায়ের মৃত্যুতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের শোক সরকারি নির্মাণাধীন বাসগৃহ পরিদর্শন করেন ইউএনও মৎস্য ব্যবসায়ীদের বাজার বর্জন বাজার ব্যবস্থাপনা ও সংস্কার কাজ পরিদর্শন আকস্মিক কলেজ পরিদর্শনে জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী মধ্যযুগীয় কায়দায় গৃহবধুকে নির্যাতন অতঃপর ৯৯৯-এ ফোন কোচিং বাণিজ্যে ব্যস্ত বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা রেললাইনের পাশ থেকে অজ্ঞাত ব্যক্তির লাশ উদ্ধার মাদক সেবন ও বিক্রির দায়ে মা-ছেলের কারাদণ্ড ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় কওমী মাদরাসার সংবাদ বর্জনের সিদ্ধান্ত সুদমুক্ত ঋণ দিল বসুন্ধরা ফাউন্ডেশন সেচ প্রকল্পের খালে বাঁধ দিয়ে মাছ চাষ ও ময়লার স্তুপ! আত্মসমর্পণ করবেন অর্ধশতাধিক ইয়াবা ব্যবসায়ী সিনহাসহ ১১ জনকে হাজির হতে পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তির নির্দেশ ভুয়া কাবিননামায় লাখ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে প্রতারক চক্র গরু ব্যবসায়ীর টাকা হাতিয়ে নিয়ে ফেঁসে গেলেন এসআই মধ্যপ্রাচ্যের প্রভাবশালী দৈনিকে বাংলাদেশি শিশু আইমানের আবিষ্কার! ‘দুর্নীতিবাজ মানুষকে আগে ক্ষমা চাইতে হবে’ জাতীয় পরিচয়পত্রের নম্বরগুলোর রহস্য জেনে নিন অস্ত্রের মুখে অপহরণের পর নারীকে রাতভর ধর্ষণ, গ্রেফতার ১

শুক্রবার   ২৪ জানুয়ারি ২০২০   মাঘ ১০ ১৪২৬   ২৮ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১

৪৬

রিকশা চালকের সততা, ৩ লাখ টাকা পেয়েও দিলেন ফিরিয়ে

প্রকাশিত: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

স্কুল শিক্ষকের তিন লাখ টাকা ফিরিয়ে দিয়ে উদারতার পরিচয় দিয়েছেন সাজ্জাদ হোসেন নামের এক রিকশাচালক। তার সততায় মুগ্ধ হয়ে পুরস্কারের ঘোষণা দিয়েছেন নওগাঁর এসপি আবদুল মান্নান মিয়া।

মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে টাকার মালিক নওগাঁ কেডি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক আবদুল হাকিমকে ফিরিয়ে দিয়েছেন সেই টাকা। রিকশাচালক সাজ্জাদ হোসেন নওগাঁ শহরের জনকল্যাণ হঠাৎপাড়ার ওয়াহেদ আলীর ছেলে। 

জানা যায়, গেল ৬ সেপ্টেম্বর সকাল ৯টার দিকে শিক্ষক আবদুল হাকিম সপরিবারে রাজশাহী যাওয়ার উদ্দেশে শহরের মুক্তির মোড় থেকে অটোরিকশায় বালুডাঙা বাসস্ট্যান্ড যান। পরে রাজশাহীর বাসে উঠে একটু দূরে গিয়ে তার কম্পিউটার ব্যাগে থাকা তিন লাখ টাকার কথা মনে হয়। সে সময় ওই টাকার ব্যাগ অটোরিকশায় ফেলে এসেছেন বলে ধারনা করেন তিনি। সঙ্গে সঙ্গে বাস থেকে নেমে বাসস্ট্যান্ডে এসে রিকশাটি খোঁজাখুঁজি করেও না পেয়ে সদর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেন।

অভিযোগ পেয়ে সদর থানার এসআই ইব্রাহিম হোসেন শহরের ভেতর দিয়ে যাওয়া প্রধান সড়কের পাশে অবস্থিত কয়েকটি স্থানের সিসি টিভি ক্যামেরা থেকে ফুটেজ সংগ্রহ করেন। পাশপাশি ওই রিকশাচালককে শনাক্ত করার চেষ্টা চালান।

পরে রিকশা চালকের নাম-ঠিকানা সংগ্রহ করা হয়। গেল ৯ সেপ্টেম্বর রাত ১১টার দিকে থানা-পুলিশ ও টাকার মালিকসহ ওই রিকশাচালকের বাড়ি থেকে  তিন লাখ টাকা (এক হাজার টাকার তিন বান্ডিল) উদ্ধার করা হয়।

এদিকে রিকশাচালকও ওই টাকাগুলো নিয়ে বিপাকে ছিলেন বলেন জানান। টাকার ব্যাগ নিয়ে তিন দিন মালিককে খুঁজেন তিনি। পরে না পেয়ে বাড়িতে রেখে দেন। পুলিশ তার বাড়িতে গেলে তিনি বিষয়টি পুলিশকে জানায়।

রিকশাচালক সাজ্জাদ হোসেন বলেন, ওই দিন তারা তড়িঘড়ি করে রিকশা থেকে নেমে যান। পরে দেখি রিকশায় একটি ব্যাগ। এরপর ব্যাগটি বাড়িতে নিয়ে এসে দেখি অনেক টাকা। টাকাগুলো নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়ে যাই।

টাকা হস্তান্তরের সময় উপস্থিত এসপি আবদুল মান্নান মিয়া বলেন, আপনারা সম্পদ বহন করার সময় সাবধানতা অবলম্বন করবেন। আমরা এরই মধ্যে মানি স্কট ব্যবস্থা চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর