ব্রেকিং:
বঙ্গবন্ধুর কলকাতার জীবন নিয়ে উপন্যাস নতুন বছরেই আকাশে দেখা যাবে ‘ফেইক মুন’ মন্দিরে পুরোহিতের বদলে মন্ত্র পড়াচ্ছে রোবট! লোভনীয় চাকরি ছেড়ে বাইক নিয়ে দেশ-বিদেশ ঘুরে বেড়াচ্ছেন তরুণী শিশুর পানিশূন্যতার লক্ষণ ও করণীয় পাকা চুল টেনে তুলে অজান্তেই নিজের ক্ষতি করছেন? ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় যাত্রীবেশে ছিনতাই ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ছাত্রমৈত্রীর ৩৯তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পেট্রোবাংলা ভবনের আগুন নিয়ন্ত্রণে অবশেষে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ‘কোটিপতি পিয়ন’ আটক ভাষা আন্দোলন-মুক্তিযুদ্ধ চিত্রে রঙিন দেয়াল যাত্রীবেশে টাকা-মোবাইল ছিনতাই, তিন যুবক ধরা আশুগঞ্জে সড়ক র্নিমাণে নিম্নমানের সামগ্রী! ট্রাক্টরের ধাক্কায় ধসে পড়ল দেয়াল, নিহত ১ চুরি ঠেকাতে দিন-রাত পেঁয়াজ ক্ষেতে আন্তর্জাতিক প্রতিবন্ধী দিবস উপলক্ষে বর্ণাঢ্য র‌্যালি পরিবার কল্যাণ সেবা সপ্তাহ পালিত ঐতিহাসিক ৬ই ডিসেম্বর আখাউড়ায় মুক্ত দিবস পালিত মুক্ত দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা মুক্তিযোদ্ধা যাচাই বাছাইয়ে ১৭টি আবেদনেই বাতিল

শনিবার   ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ২৩ ১৪২৬   ০৯ রবিউস সানি ১৪৪১

৭৮২

যাবজ্জীবন মানে আমৃত্যু কারাদণ্ড কি না রায় যেকোনো দিন

প্রকাশিত: ১১ জুলাই ২০১৯  

‘যাবজ্জীবন মানে আমৃত্যু কারাদণ্ড’এ সংক্রান্ত আপিল বিভাগের রায়ের বিরুদ্ধে করা রিভিউ আবেদনের শুনানি শেষ হয়েছে। এ বিষয়ে যেকোনো দিন রায় ঘোষণা করবেন আপিল বিভাগ।

বৃহস্পতিবার প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগ এই আদেশ দেন।

আদালতে রিভিউ আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

এ ছাড়া আদালতে এই মামলায় অ্যামিকাস কিউরি (আদালত বন্ধু) হিসেবে মতামত তুলে ধরেন ব্যারিস্টার রোকন উদ্দিন মাহমুদ, প্রাক্তন অ্যাটর্নি জেনারেল এ এফ হাসান আরিফ, অ্যাডভোকেট আবদুর রেজাক খান ও আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট এ এম আমিন উদ্দিন।

২০০৩ সালের ১৫ অক্টোবর একটি হত্যা মামলায় দুই আসামি আতাউর মৃধা ওরফে আতাউর ও আনোয়ার হোসেনকে মৃত্যুদণ্ড দেন বিচারিক আদালত। এরপর ওই রায়ের বিরুদ্ধে আসামিদের আপিল ও মৃত্যুদণ্ড অনুমোদনের জন্য ডেথ রেফারেন্স (মৃত্যুদণ্ড অনুমোদন) শুনানির জন্য হাইকোর্টে আসে। এসব আবেদনের শুনানি নিয়ে ২০০৭ সালের ৩০ অক্টোবর হাইকোর্টের রায়ে দুই আসামির মৃত্যুদণ্ড বহাল রাখা হয়। হাইকোর্টের সে রায়ের বিরুদ্ধে আসামিরা আপিল বিভাগে আপিল আবেদন জানান।

২০১৭ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি আপিল বিভাগের দেয়া রায়ে দুই আসামির মৃত্যুদণ্ড কমিয়ে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হয়। একই সঙ্গে আদালত যাবজ্জীবন মানে আমৃত্যু কারাবাসসহ সাত দফা অভিমত দেন। এরপর আপিলের ওই রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন করেন।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর