ব্রেকিং:
আজিজুল হকের মায়ের মৃত্যুতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের শোক সরকারি নির্মাণাধীন বাসগৃহ পরিদর্শন করেন ইউএনও মৎস্য ব্যবসায়ীদের বাজার বর্জন বাজার ব্যবস্থাপনা ও সংস্কার কাজ পরিদর্শন আকস্মিক কলেজ পরিদর্শনে জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী মধ্যযুগীয় কায়দায় গৃহবধুকে নির্যাতন অতঃপর ৯৯৯-এ ফোন কোচিং বাণিজ্যে ব্যস্ত বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা রেললাইনের পাশ থেকে অজ্ঞাত ব্যক্তির লাশ উদ্ধার মাদক সেবন ও বিক্রির দায়ে মা-ছেলের কারাদণ্ড ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় কওমী মাদরাসার সংবাদ বর্জনের সিদ্ধান্ত সুদমুক্ত ঋণ দিল বসুন্ধরা ফাউন্ডেশন সেচ প্রকল্পের খালে বাঁধ দিয়ে মাছ চাষ ও ময়লার স্তুপ! আত্মসমর্পণ করবেন অর্ধশতাধিক ইয়াবা ব্যবসায়ী সিনহাসহ ১১ জনকে হাজির হতে পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তির নির্দেশ ভুয়া কাবিননামায় লাখ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে প্রতারক চক্র গরু ব্যবসায়ীর টাকা হাতিয়ে নিয়ে ফেঁসে গেলেন এসআই মধ্যপ্রাচ্যের প্রভাবশালী দৈনিকে বাংলাদেশি শিশু আইমানের আবিষ্কার! ‘দুর্নীতিবাজ মানুষকে আগে ক্ষমা চাইতে হবে’ জাতীয় পরিচয়পত্রের নম্বরগুলোর রহস্য জেনে নিন অস্ত্রের মুখে অপহরণের পর নারীকে রাতভর ধর্ষণ, গ্রেফতার ১

শুক্রবার   ২৪ জানুয়ারি ২০২০   মাঘ ১০ ১৪২৬   ২৮ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১

৩৮৭

বৌভাতের আগেই ধরা খাওয়া সেই ধর্ষক বরের জন্য একদিনের রিমান্ড

প্রকাশিত: ১৮ আগস্ট ২০১৯  

খুলনায় বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এলএলবির এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে সেই ধর্ষক বরকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। খুলনা মেট্রোপলিটন ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের বিচারক শহিদুল ইসলাম শুনানি শেষে রোববার দুপুরে এই রায় দেন।

অভিযুক্ত শিঞ্জন রায় খুলনার কর কমিশনার প্রশান্ত কুমার রায়ের ছেলে।

এর আগে নগরীর সোনাডাঙ্গা থানায় দায়ের হওয়া নারী নির্যাতন মামলায় শিঞ্জনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তদন্ত কর্মকর্তা ইন্সপেক্টর তৌহিদুর রহমান পাঁচদিনের রিমান্ড চেয়ে আবেদন জানান। পরে রোববার শুনানি শেষে আদালত এক দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

মামলার বিবরণীতে জানা গেছে, সোনাডাঙ্গার একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে তাকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এক বছর ধরে শারীরিক সম্পর্ক স্থাপন করেন শিঞ্জন রায়। ওই ছাত্রীকে বিভিন্নস্থানে নিয়ে শারীরিক সম্পর্কে বাধ্য করতো শিঞ্জন।

পরে শিঞ্জনের সঙ্গে অন্য মেয়ের বিয়ের খবর ওই ছাত্রীর কানে পৌঁছালে সে শিঞ্জনের খোঁজে ১৫ আগস্ট রাতে মুজগুন্নী আবাসিকের ১৬ নম্বর রোডে যান। সেখানে গিয়ে শিঞ্জন রায়ের দেখা পান। এ সময় বিষয়টি স্থানীয়দের নজরে আসে। থানা পুলিশের কাছে খবর গেলে তারা দুইজনকেই সোনাডাঙ্গা মডেল থানায় নিয়ে আসে। 

পুলিশ ১৫ আগস্ট ওই ছাত্রীকে ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টারে হস্তান্তর করেন। এরপর রাতে তার শারীরিক অবস্থার কথা বিবেচনা করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল প্রেরণ করেন। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে ওই ছাত্রী ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) ভর্তি করা হয়।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর