ব্রেকিং:
প্রতিদিন কয়েকবার গরম পানির ভাপ নিয়েছি করোনায় ব্যতিক্রমী উদ্যোগ এমপিওভুক্তির সুখবর পেল ১৬৩৩ স্কুল-কলেজ ২০ হাজারের বেশি আইসোলেশন শয্যা প্রস্তুত রয়েছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে মানুষ, দৃষ্টান্ত স্থাপন করে চলেছে বৈশ্বিক ক্রয়াদেশ পূরণে সক্ষম বাংলাদেশ ॥ শেখ হাসিনা লোকসান ঠেকাতে সরাসরি ক্ষেত থেকে সবজি কিনছে সেনাবাহিনী করোনা পরীক্ষায় দেশে চালু হলো প্রথম বেসরকারি ল্যাব যে দোয়ার আমলে স্মরণশক্তি বৃদ্ধি পাবে ইনশাআল্লাহ! আল্লাহ তিন ধরনের লোকের দোয়া ফিরিয়ে দেন না করোনা রোগীদের বাড়ি প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ উপহার ভেন্টিলেটর-সিসিইউ স্থাপনে জরুরি প্রকল্প বঙ্গবন্ধুর মতো নেতা পৃথিবীতে খুব কম দেখা যায়: ট্রাম্প গবেষণা প্রটোকল জমা না দিয়েই বিষোদগার করছেন জাফরুল্লাহ জাতিসংঘের বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচিতে নিয়োগ করোনা আক্রান্তের শরীরের অক্সিজেনের পরিমাণ ঘরেই পরীক্ষার উপায় মধ্যবিত্তরাও খাদ্যসহায়তার আওতায়: শিল্প প্রতিমন্ত্রী কর্মস্থল ত্যাগকারীদের তালিকা চায় মন্ত্রণালয় নাসিরনগরে শিশু নিহতের ঘটনায় গ্রেফতার ২ দেশে ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড সংখ্যক আক্রান্ত, আরো ৮ মৃত্যু
  • শনিবার   ০৬ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২৪ ১৪২৭

  • || ১৪ শাওয়াল ১৪৪১

৪৬২

বিশ্ব নদী দিবস উপলক্ষে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নোঙরের মানববন্ধন

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া

প্রকাশিত: ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

২১ সেপ্টেম্বর রোজ শনিবার বেলা ১১:০০টায় বিশ্ব নদী দিবস ২০১৯” উপলক্ষে “বিশ্ব নদী দিবসের অঙ্গিকার, রুখে দাও খাল-নদী দূষণকারী-দখলদার” এই দাবিতে নোঙর (নদী নিরাপত্তার সামাজিক সংগঠন) ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাব প্রাঙ্গণ সড়কে এক ‘মানববন্ধন’ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

নদীমাতৃক বাংলাদেশে সকল নদ-নদীর শেকড় হচ্ছে খাল-বিল, জলাশয়, হাওর-বাওর। জেলার খালগুলো ছিল মানবদেহের শিরা-উপশিরার মতো ছড়িয়ে-ছিটিয়ে, ছিল প্রাণবন্ত। কিন্তু এখন এ খালগুলোর অধিকাংশেরই মরণদশা। এসব খাল ভরাট করে অবৈধভাবে দোকানপাট, বাড়িঘরসহ বিভিন্ন স্থাপনা নির্মাণ করেছে প্রভাবশালীরা। আবর্জনায় পরিপূর্ণ কোনো কোনো খাল বদ্ধ জলাশয়ে পরিণত হয়েছে। এসব খালের পানি নিষ্কাশন ক্ষমতাও হারিয়ে যাচ্ছে। বারবার অভিযান চালিয়েও অবৈধ দখলদারদের উচ্ছেদে সফল হতে পারছে না কর্তৃপক্ষ।

কঠিন বর্জ্যে ভরে আছে তিতাস নদীসহ জেলার বিভিন্ন খালগুলো। নির্গমণ পথ না থাকায় আবদ্ধ হয়ে পড়েছে। জমি অধিগ্রহণের কথা বহু বছর ধরে শোনা যাচ্ছে। তিতাস নদী খনন কাজ শুরু হলেও তা গতিহীন হয়ে পড়েছে।
সরকারের পাশাপাশি আমাদের জনগণ, রাজনৈতিকনতৃবর্গ, বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন, তরুণ সমাজ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে হবে।তাহলেই আমাদের খাল-নদী বাঁচবে, নদী বাঁচলে বাঁচবে দেশ।

উক্ত মানববন্ধনে আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন; ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলা চেয়ারম্যান লায়ন ফিরোজুর রহমান ওলিও, বীর মুক্তিযোদ্ধা সাবেক জেলা কমান্ডার হারুন অর রশিদ, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদ সিলেট অঞ্চলের সাংগঠনিক সম্পাদক তিতাস আবৃত্তি সংগঠনের পরিচালক সাংবাদিক মনির হোসেন, পিস ভিশন বাংলাদেশ সভাপতি এড. শেখ মো. জাহাঙ্গীর আলম, সাবেক ওয়ার্ড কমিশনার বাবু কিংকর ঘোষ, নোঙর সদস্য নারী নেত্রী খালেদা মুন্নি, অংকুর প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি কাজী রিপন, নোঙর সদস্য ফেবিন রহমান, নোঙর সদস্য সঙ্গীত শিল্পী সোহেল রানা, শান্তা ইসলাম। উপস্থিত ছিলেন নোঙর সদস্য মিজানুর রহমান, কামাল উদ্দিন, শিপন কর্মকার, তোফাজ্জল হোসেন জীবন, দৈনিক ভোরের দর্পণ ও বিজয় টিভি’র ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি খায়রুল কবীর, নাফিজ আহমেদ সেলিম, পিস ভিশন বাংলাদেশ সম্পাদক শরীফ আহমদ খান, ইবনে মনির হোসেন, মনির হোসেন, আবদুল হাকিম প্রমূখ। মানববন্ধনে সভাপতিত্ব করেন নোঙর জেলা আহবায়ক শামীম আহমেদ। অনুষ্ঠানটি সার্বিক পরিচালনা করেন নোঙর সদস্য সোহেল আহাদ।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
ব্রাহ্মণবাড়িয়া বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর