ব্রেকিং:
নাসিরনগরে ভূমি কর্মকর্তার বিরুদ্ধে জেলা প্রশাসনের মামলা ছয় জেলায় সার সরবরাহ বন্ধ আশুগঞ্জ সারকারখানার নবীনগরে সরকারি খাল ভরাটের মহা উৎসব! ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় অবৈধ গ্যাস সংযোগ তদন্তে মাঠে দুদক সরাইলে পুলিশের হাতে পলাতক আসামি গ্রেপ্তার আশুগঞ্জ সার কারখানা থেকে পুনরায় সার সরবরাহ শুরু হয়েছে বিজয়নগরে পলাতক ৭ আসামীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ পরীক্ষার মুখে আখাউড়া ছাত্রলীগ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ডেঙ্গু প্রতিরোধে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা অভিযান নূর চৌধুরীর তথ্য প্রকাশে কানাডার আদালতে বাংলাদেশের পক্ষে রায় আখাউড়ায় শিক্ষকের যৌন হয়রানির প্রতিবাদে সড়কে শিক্ষার্থীরা সরাইলে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের চারপাশে জুয়া ও মাদকের আসর অর্থ লেনদেনের অভিযোগে সরাইল স্বেচ্ছাসেবক দলের কমিটি বাতিল নাসিরনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান আখাউড়া উপজেলা ছাত্রলীগে পদ পেতে এ কি শর্ত দিলেন আইনমন্ত্রী! সরাইল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ১ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ ব্রিটেনের প্রধান গির্জায় কোরআন তিলাওয়াতের বিরল ঘটনা স্মার্টফোনের বদলি হিসেবে ‘স্মার্ট গ্লাস’ আনছে ফেসবুক এডিআর বাড়িয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক আওয়ামী লীগের নেতারা দুর্নীতি করলে ছাড় নয়: কাদের

শনিবার   ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৫ ১৪২৬   ২১ মুহররম ১৪৪১

১৮২

ফল খেয়ে মাতাল বন্যপ্রাণী!

প্রকাশিত: ১১ জুলাই ২০১৯  

বনের ফল-মূল খেয়েই বেঁচে থাকে অনেক প্রাণী। তাছাড়া বনের আশেপাশের মানুষও সেইসব ফল খায়। কিন্তু বনের ফল খেয়ে মাতাল হওয়া কি সম্ভব? হ্যাঁ, এই অসম্ভব কাজটি হয়েছে বন্যপ্রাণীদের সঙ্গে। চলুন জেনে নেয়া যাক মাতাল হওয়া এক ফলের কথা-

পৃথিবীতে এমন এক ফল রয়েছে, যা খেলে আর স্বাভাবিক জীবন থাকে না বন্যপ্রাণীর। বেশি দূরে নয়, এমন ফলের সন্ধান পাওয়া গেছে আফ্রিকায়। আফ্রিকার সাভান্না নামক অঞ্চলে রয়েছে এ ফল। সেখানে ‘মারুলা’ নামের এক ধরনের ফল পাওয়া যায়। বনের ওই পাকা ফলটিতে প্রচুর ভিটামিন সি ও প্রোটিন থাকে। ফলে সাভান্না অঞ্চলের মানুষসহ বিভিন্ন প্রাণীর খাবার হিসেবে ফলটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ফলটিতে প্রচুর সুগার থাকায় মাটিতে পড়ার অল্প কিছুক্ষণের মধ্যেই পচে যায়। পচে যাওয়ার কারণে ফলটির ভেতরে প্রচুর অ্যালকোহল তৈরি হয়।

বন্যপপ্রাণীগুলো এসব পচে যাওয়া ফল খেয়ে সহজেই মাতাল হয়ে যায়। এমনকি পাখি থেকে শুরু করে পোকামাকড়ও মাতাল হয়ে যায়। তখন আর তারা ঠিকভাবে হাঁটতে পারে না। হেলে দুলে কিছুদূর যাওয়ার পরে মাটিতে পড়ে যায়। উঠে দাঁড়ানোর চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়। অবশেষে রাত নেমে এলে বনের চারিদিকে গভীর নিস্তব্ধতা নেমে আসে। প্রাণীরা যে যেখানে জায়গা পায়, সেখানেই লম্বা একটি প্রশান্তির ঘুম দেয়। পরদিন সকালে ঘুম ভাঙার পর এসব প্রাণী হয়তো বুঝতেই পারে না, গতকাল তাদের মধ্যে কী ঘটেছিল। এভাবেই আবার কিছুক্ষণ চলে স্বাভাবিক জীবন। পরক্ষণেই ফল খেয়ে মাতাল হয়ে যায় প্রাণীগুলো। এভাবেই চক্রাকারে চলে তাদের মাতাল জীবন।  

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর