ব্রেকিং:
দুর্ধর্ষ মাদক ব্যবসায়ী আটক সাংবাদিকতায় দেশ সেরা অ্যাওয়ার্ড পেলেন মিশু জেলা উন্নয়ন সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত বিষ প্রয়োগে সর্বশান্ত মৎস্য চাষী বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের সচিবকে সংবর্ধনা পাঁচ দফা দাবিতে ফারিয়ার মানববন্ধন মসজিদের দেয়ালে ফাটল, আতঙ্কে মুসল্লিরা গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মাদক উদ্ধার মাদক বিরোধী প্রীতি ফুটবল ম্যাচ অনুষ্ঠিত মাদকসেবীর হুমকিতে স্কুলে যাওয়া বন্ধ শিক্ষার্থীর ফুটপাত দখলমুক্ত করলেন ইউএনও শারীরিক সক্ষম হলেই রক্তদান করবে শিক্ষার্থীরা একই তেলে বার বার রান্না ক্যান্সার ও হৃদরোগের কারণ বিশ্ববিদ্যালয়ে গবেষণার ওপর জোর দেয়ার তাগিদ তথ্যমন্ত্রীর মুক্ত বাণিজ্য চুক্তিকে অগ্রাধিকার দেয়া হচ্ছে: বাণিজ্যমন্ত্রী নারীর মনে জায়গা পাওয়ার উপায় পানিতে পড়া ফোন যেভাবে দ্রুত সারিয়ে তুলবেন যে কারণে ‘সুদ’ হারাম উদ্বোধন হলো শেখ কামাল ক্লাব কাপ আওয়ামী লীগের সম্মেলন মানেই নতুন মুখ: কাদের

সোমবার   ২১ অক্টোবর ২০১৯   কার্তিক ৫ ১৪২৬   ২১ সফর ১৪৪১

১৫

পুলিশের নাম ভাঙিয়ে চাঁদাবাজি, আসামি গ্রেফতার

প্রকাশিত: ৯ অক্টোবর ২০১৯  

কক্সবাজারের টেকনাফে পুলিশের নাম ভাঙিয়ে প্রতারণা ও চাঁদাবাজির মামলার পলাতক আসামি মোহাম্মদ ফরিদকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সোমবার সকালে হ্নীলার দরগার এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় তার কাছ থেকে সাড়ে ১০হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

গ্রেফতার ফরিদ উপজেলার হ্নীলা ইউপির রঙ্গিখালী এলাকার আবু শামার ছেলে।

মামলার বাদী আনোয়ার হোসেন বলেন, আমার ভাইয়ের বিরুদ্ধে গত সেপ্টেম্বর মাসে একটি হত্যা মামলা হয়। সেই সূত্র ধরে, ফরিদ জানায় তার সঙ্গে পুলিশের ভালো সম্পর্ক রয়েছে। আড়াই লাখ টাকা দিলে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তাকে দিয়ে রিদুয়ানকে ওই মামলা থেকে বাদ দিতে পারবেন। তার দাবিকৃত টাকা দিতে অনীহা প্রকাশ করলে পুলিশের মাধ্যমে আটক করে ক্রসফায়ারের হুমকি দেয়া হয়। পরে তাকে গত ১১ সেপ্টেম্বর ১লাখ ৭০হাজার টাকা বুঝিয়ে দিলেও ৩০সেপ্টেম্বর পুলিশ আমার ভাইকে আটক করে আদালতে সোপর্দ করেন। এরপর ফরিদকে টাকা দেয়ার পর কেন পুলিশ তার ভাইকে চালান দিয়েছে জানতে চাইলে সে বিভিন্ন ধরনের তালবাহানা শুরু করেন। এ বিষয়টি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানকে অবহিত করতে যাওয়ার সময় নাফ ফিলিং স্টেশনের সামনে ফরিদ আমাকে একা পেয়ে মারধর করেন। এ সময় পকেট থাকা সাড়ে ১০ হাজার টাকা ছিনিয়ে নিয়ে পালিয়ে যান। এ ঘটনায় ফরিদের বিরুদ্ধে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়।

টেকনাফ মডেল থানার ওসি (অপারেশন) রাকিবুল ইসলাম বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশের একটি দল তাকে আটক করে। তার বিরুদ্ধে পুলিশের নাম ভাঙিয়ে টাকা আদায় ও চাঁদাবাজির অভিযোগ রয়েছে। তাকে বিকেলে কক্সবাজার আদালতে পাঠানো হলে বিচারক তাকে জেল হাজতে পাঠান।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর