ব্রেকিং:
দুই উপকরণে মিনিটেই তৈরি করুন জীবাণুনাশক স্প্রে! দেশে করোনায় আক্রান্তদের মধ্যে ১৫ জন সুস্থ, নতুন শনাক্ত নেই বিমানের সব রুট বন্ধ সচেতন থাকলে করোনা ইউরোপের মতো সংক্রমণ হবে না এনজিও’র উদ্যোগে অসহায় পরিবারের মাঝে খাবার সামগ্রী বিতরণ বিজয়নগরে ৩ ব্যবসায়ীকে অর্থদন্ড জুয়া খেলাকে কেন্দ্র করে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা দোকানের সামনে ভাইরাস সংক্রমন ঠেকাতে লাল বৃত্ত স্থাপন নবীনগর পৌরসভার জীবানুনাশক স্প্রে ছিটানো শুরু আখাউড়ায় মাস্ক ও গ্লাভস বিতরণ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ওষুধের দাম বেশি নেয়ায় ফার্মেসিকে জরিমানা অবৈধ-মেয়াদোত্তীর্ণ স্যানিটাইজার বিক্রির দায়ে জরিমানা সবার অজান্তে লাশ হলেন গৃহবধূ করোনা থেকে মুক্তির জন্য ২৫ হাজার কোটি টাকা চাওয়া যুবক আটক ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় করোনা প্রতিরোধে ‘কুইক রেসপন্স টিম’ করোনায় একদিনেই আক্রান্ত এক লাখ, হু হু করে বাড়ছেই করোনা থেকে রক্ষা পেতে মদ পান, ৩০০ ইরানির মৃত্যু ৭২ ঘণ্টার মধ্যেই করোনাভাইরাস প্রতিরোধের নয়া উপায় জানালেন চিকিৎসক! অবৈধ-মেয়াদোত্তীর্ণ স্যানিটাইজার বিক্রির দায়ে জরিমানা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ত্রাণ সামগ্রী বিতর
  • শনিবার   ২৮ মার্চ ২০২০ ||

  • চৈত্র ১৪ ১৪২৬

  • || ০৩ শা'বান ১৪৪১

১৫৮

ধর্ষণ রোধে আবিষ্কার হলো অভিনব জুতা

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া

প্রকাশিত: ২০ জানুয়ারি ২০২০  

ধর্ষণ ও শ্লীলতাহানির ঘটনায় জর্জরিত সমাজ। এতে নারীদের সুরক্ষার বিষয়টি নিয়ে চিন্তিত সবাই। এরইমধ্যে নারীদের ধর্ষণ বা শ্লীলতাহানি রোধে অভিনব জুতা আবিষ্কার হয়েছে। এমন জুতা আবিষ্কার করেছেন ভারতের রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয়ের পদার্থবিদ্যা বিভাগের কর্মী বাপ্পা রায়। আর জুতাটিকে একবিংশ শতকের নয়া টুইস্ট মনে করা হচ্ছে।-খবর ইনডিয়ান এক্সপ্রেসের।

আবিষ্কারক বাপ্পা জানান, হাল ফ্যাশানের জুতার এ ‘সেফটি সু’র সঙ্গে রয়েছে নতুন প্রযুক্তি। এরইমধ্যে থাকবে জিপিএস সিস্টেম। পাশাপাশি থাকবে ৬০০ ভোল্টের এ সি কারেন্ট।  ভুক্তভোগী চাইলেই জুতার বৈদ্যুতিক ক্ষমতা ব্যবহার করে দুর্বৃত্তদের কাবু করতে পারবেন।

তিনি আরো জানান, সেফটি সু’র দাম সাধ্যের মধ্যেই রয়েছে। মাত্র সাড়ে ৩০০ থেকে ৪০০ টাকায় মিলবে এ জুতা। বিশেষ করে ইভটিজিংয়ের সম্মুখীন হলে মেয়েরা অনায়াসেই জুতাটি ব্যবহার করে আত্মরক্ষা করতে পারবেন। এছাড়া ভুক্তভোগী মেয়ের অবস্থান সহজেই শনাক্ত করতে পারবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

বাপ্পা জানান, উচ্চমানের ভোল্টেজের সঙ্গে জুতোয় জিপিএস সিস্টেম বসিয়ে খুব সহজে ট্র্যাকিং করার সুযোগ থাকছে। জুতার আভ্যন্তরীণ সার্কিটে লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারির সাড়ে চার ভোল্টকে ৬০০ এসি ভোল্টেজে রূপান্তর করা হয়েছে। আর এ ৬০০ ভোল্টের জুতা যেকোনো দুর্বৃত্তকে ধাক্কা দিতে যথেষ্ট।

জুতায় ব্যবহৃত উপাদান সম্পর্কে বাপ্পা বলেন,  জুতার সার্কিট বানাতে খরচ হয়েছে ১৪০ টাকা। এর ভেতরে রয়েছে ডায়োড, ট্রানজিস্টর, ট্রান্সফরমার। সার্কিটটি জুতার ভেতর বসালে কিছু ধাতব তার জুতার বাইরের গায়ে লেগে থাকবে। ওই তারগুলোয় থাকবে উচ্চমানের ভোল্টেজ। একটি ফুল চার্জের ব্যাটারি এক হাজার ভোল্টের ধাক্কা দেবে। হাঁটতে হাঁটতে ব্যাটারি চার্জ হবে। জুতার ভেতরে থাকা সুইচটি দরকারের সময় চালু করলেই উদ্দেশ্য সফল করা সম্ভব। এছাড়া জুতায় সেন্সর রয়েছে। চলার সময় কোনো বিপত্তি ঘটলে জুতাটি সংকেত দেবে।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর