ব্রেকিং:
সিটি নির্বাচন: দুই হাজার মণ পলিথিন বর্জ্য তৈরির শঙ্কা নবীনগরে চলছে কোরআন তেলাওয়াত প্রতিযোগিতা ভাইরাসবাহী সন্দেহে বাংলাদেশীকে ফেরত পাঠালো ভারত একমাত্র ছেলের ছবি বুকে জড়িয়ে রাস্তায় মা মরদেহ আনতে আখাউড়া বর্ডারে হাজার হাজার মানুষ লেবাননে সড়ক দুর্ঘটনায় কসবায় শোকের মাতম প্রতিবন্ধিতা ও বৈষম্যহীন স্বদেশ, কুষ্ঠমুক্ত হোক আমাদের বাংলাদেশ জমে উঠেছে নবীনগর শিক্ষক সমিতির নির্বাচন অটোরিকশা চার্জ দিতে গিয়ে কিশোরের মৃত্যু আখাউড়ায় মাদকসহ ব্যবসায়ী আটক লুকানো গাঁজাসহ মামা-ভাগিনা আটক অসহায় শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণ পুকুর দূষণ রোধে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন করোনার চিকিৎসায় এইডসের ওষুধ, সুস্থ হলেন ৪৯ জন! রাতের ঢাকায় মিজানুরের মতো আরো তিন জনকে হত্যা করে তারা নারীদের সুরক্ষা দেবে জাবি শিক্ষার্থীর বানানো ‘অ্যালাই’ গ্রাহককে জিম্মি করে কোটিপতি ইভ্যালি সিভি’র যে ভুলগুলো আপনার জানা জরুরি ইসলামের দৃষ্টিতে মহামারির কারণ ও করণীয় সন্তানরা কোন ধর্মের জানালেন শাহরুখ খান

সোমবার   ২৭ জানুয়ারি ২০২০   মাঘ ১৪ ১৪২৬   ০১ জমাদিউস সানি ১৪৪১

৩৯০

ছাত্রদলের কমিটি জটিলতায় আটকে আছে বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশ

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া

প্রকাশিত: ২৭ আগস্ট ২০১৯  

আগামী ১৪ সেপ্টেম্বর ছাত্রদলের ষষ্ঠ কাউন্সিলের পর বাকি চার বিভাগে দলের সমাবেশ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএনপি। দেশের প্রতিটি বিভাগে সমাবেশ করার সিদ্ধান্ত নিলেও তা আটকে গেছে। সমাবেশে ভাটা পড়ার কারণ হিসেবে জানা গেছে ছাত্রদলের কমিটির গঠনে সৃষ্ট জটিলতা। নেতারা বলছেন, ছাত্রদলের সঠিক নেতৃত্ব ছাড়া সমাবেশ সফল সম্ভব নয়। তাই কমিটি গঠনের পর সমাবেশ করা হবে।

সূত্র জানায়, এর আগে বিএনপি যেসব বিভাগে সমাবেশ করেছে তা সফল হয়ে ওঠেনি। কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের কমিটি নিয়ে পক্ষ-বিপক্ষ দেশজুড়ে ছড়িয়ে যাওয়ায় অনেক কর্মীরা সমাবেশে যোগ দেয়নি। ফলে তা নিরস সমাবেশে পরিণত হয়েছিলো। পবিত্র ঈদুল আজহাকে কেন্দ্র করে সমাবেশ কর্মসূচি স্থগিত করে ঈদের পর পুনরায় চালু করার কথা থাকলেও কেন্দ্র এই নতুন সিদ্ধান্ত দিলো।

শনিবার (২৪ আগস্ট) রাজধানীর গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে স্থায়ী কমিটির নিয়মিত বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয় বলে জানা গেছে। দলের স্থায়ী কমিটির এক সদস্য বলেন, কারাবন্দী বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে কোরবানির ঈদের আগে খুলনা, চট্টগ্রাম ও বরিশাল বিভাগে বিভাগীয় সমাবেশ হয়েছে। সমাবেশগুলোতে নেতা-কর্মীদের উপস্থিতি পাওয়া যায়নি। এ কারণে বাকি চার বিভাগের সমাবেশ ছাত্রদলের কাউন্সিলের পর করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, মূলত সমাবেশগুলোতে নেতা-কর্মীদের অনুপস্থিতির প্রধান কারণ ছিলো ছাত্রদলের কমিটি নিয়ে জটিলতা। তাই এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। ফলে ছাত্রদলের কমিটি সুষ্ঠু হওয়া এখন অবধারিত হয়ে গেছে। কিন্তু কমিটি কেন্দ্রিক বিভিন্ন জটিলতা যেভাবে বাড়ছে তাতে সমাবেশের সফলতা নিয়েও প্রশ্ন থেকেই যাচ্ছে।

প্রসঙ্গত, এর আগে গত ১১ জুন হঠাৎ কমিটি ভেঙে দেয়া এবং বয়সসীমা নির্ধারণের প্রতিবাদে ছাত্রদলের বিক্ষুব্ধরা নানা আন্দোলন কর্মসূচি চালায়। এছাড়া কার্যালয়ে তালা ঝুলিয়ে দেয়াসহ নেতাদের হেনস্তাও করেন তারা। এসময় তারা কার্যালয়ের বিদ্যুৎ সংযোগও বিচ্ছিন্ন করে দেন। এর প্রেক্ষিতে ছাত্রদলের ১২ নেতাকে বহিষ্কারও করা হয়। যার এখন পর্যন্ত কোনো সুরাহা হয়নি। কিন্তু এই টানাপোড়েনের মধ্যেই আগামী ১৪ সেপ্টেম্বর ছাত্রদলের ষষ্ঠ কাউন্সিলের ঘোষণা দিয়েছে বিএনপি।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর