ব্রেকিং:
প্রতিদিন কয়েকবার গরম পানির ভাপ নিয়েছি করোনায় ব্যতিক্রমী উদ্যোগ এমপিওভুক্তির সুখবর পেল ১৬৩৩ স্কুল-কলেজ ২০ হাজারের বেশি আইসোলেশন শয্যা প্রস্তুত রয়েছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে মানুষ, দৃষ্টান্ত স্থাপন করে চলেছে বৈশ্বিক ক্রয়াদেশ পূরণে সক্ষম বাংলাদেশ ॥ শেখ হাসিনা লোকসান ঠেকাতে সরাসরি ক্ষেত থেকে সবজি কিনছে সেনাবাহিনী করোনা পরীক্ষায় দেশে চালু হলো প্রথম বেসরকারি ল্যাব যে দোয়ার আমলে স্মরণশক্তি বৃদ্ধি পাবে ইনশাআল্লাহ! আল্লাহ তিন ধরনের লোকের দোয়া ফিরিয়ে দেন না করোনা রোগীদের বাড়ি প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ উপহার ভেন্টিলেটর-সিসিইউ স্থাপনে জরুরি প্রকল্প বঙ্গবন্ধুর মতো নেতা পৃথিবীতে খুব কম দেখা যায়: ট্রাম্প গবেষণা প্রটোকল জমা না দিয়েই বিষোদগার করছেন জাফরুল্লাহ জাতিসংঘের বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচিতে নিয়োগ করোনা আক্রান্তের শরীরের অক্সিজেনের পরিমাণ ঘরেই পরীক্ষার উপায় মধ্যবিত্তরাও খাদ্যসহায়তার আওতায়: শিল্প প্রতিমন্ত্রী কর্মস্থল ত্যাগকারীদের তালিকা চায় মন্ত্রণালয় নাসিরনগরে শিশু নিহতের ঘটনায় গ্রেফতার ২ দেশে ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড সংখ্যক আক্রান্ত, আরো ৮ মৃত্যু
  • শুক্রবার   ০৫ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২২ ১৪২৭

  • || ১২ শাওয়াল ১৪৪১

৬৫১

‘চলতি মাসেই পাঁচ হাজার ডাক্তার নিয়োগ’

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া

প্রকাশিত: ১৮ এপ্রিল ২০১৯  

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক স্বপন বলেছেন, চলতি এপ্রিল মাসেই পাঁচ হাজার ডাক্তার নিয়োগ দেয়া হবে। পরবর্তী সময়ে নিয়োগ দেয়া হবে আরো পাঁচ হাজার।

বুধবার বিকেলে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে একটি অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এসব কথা জানান। জাতীয় স্বাস্থ্যসেবা সপ্তাহ ২০১৯ উপলক্ষে এই আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। 

প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, দেড় বছর আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দশ হাজার ডাক্তার নিয়োগের অনুমতি দেন। কিন্তু নানা জটিলতায় এতদিন এই নিয়োগ দেয়া সম্ভব হয়নি। 

স্বাস্থ্যমন্ত্রী সরকারের স্বাস্থ্য খাতের বিভিন্ন উন্নয়নের চিত্র তুলে ধরে বলেন, এখন গড় আয়ু ৭২ বছর। এটা সরকারের একটি সাফল্য। এই সরকারের আমলে ১৯টি সরকারি ও ৪৩টি বেসরকারি হাসপাতাল অনুমোদন দেয়া হয়েছে বলেও জানান মন্ত্রী।

বিশেষ অতিথি স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী মুরাদ হাসান বলেন, ডাক্তারদের সবার সঙ্গে তুলনা করলে হবে না। তাদের ধৈর্য সহকারে পরিস্থিতির মোকাবিলা করতে হবে। ডাক্তারদের রোগীকে আপনজন মনে করতে হবে। সেই দৃষ্টিতে সেবা দিতে হবে।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া। এতে মুখ্য আলোচকের বক্তব্য দেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মাহমুদ। বক্তব্য দেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব (স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগ)  জি. এম. সালেহ উদ্দিন, স্বাস্থ্য অধিপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদ, বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি  মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন প্রমুখ।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
স্বাস্থ্য বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর