ব্রেকিং:
সবজি বেচেই চলে সংসার প্রশাসনের তৎপরতায় বাল্যবিবাহ থেকে রক্ষা পেল তিন স্কুলছাত্রী ৫০০০ মিটার দৌঁড়ে বিশ্ব রেকর্ড ৯৬ বছরের বৃদ্ধের! আর্থিক সহায়তা পেতেই ট্রাম্পের কাছে মিথ্যাচার করলো প্রিয়া সাহা! কারাগারে মিন্নি মিয়ানমারের উপর যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞা পর্যাপ্ত নয়: জাতিসংঘ বদলি খেলোয়াড় নামানোর নতুন নিয়ম চালু আইসিসির বাংলাদেশ-ভারত-ভুটান বাণিজ্যে নবযাত্রার সূচনা জাতীয় মৎস্য পুরস্কারে স্বর্ণপদক পেল নৌবাহিনী ওষুধের পাতায় মেয়াদ-মূল্য স্পষ্ট থাকতে হবে: হাইকোর্ট জিম্বাবুয়েকে বহিষ্কার করল আইসিসি রোহিঙ্গা নির্যাতন: আইসিসি’র অনুমতি পেলে তদন্তে নামবে দল ক্রিকইনফোর একাদশেও সাকিব, নেই কোহলি রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে জাতিসংঘ মহাসচিবের উদ্বেগ রিফাত হত্যায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে মিন্নি জেলা হাসপাতালগুলো দালালমুক্ত করার নির্দেশ জঙ্গি-চরমপন্থীদের আবির্ভাব যেন না হয়: ডিসিদের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মাছ উৎপাদনে আমরা প্রথম হতে চাই: প্রধানমন্ত্রী নয়ন বন্ডের ঘনিষ্ঠ রিশান ফরাজী গ্রেফতার ক্রাইস্টচার্চে নিহতদের স্বজনদের হজ করাবে সৌদি

শনিবার   ২০ জুলাই ২০১৯   শ্রাবণ ৫ ১৪২৬   ১৭ জ্বিলকদ ১৪৪০

৭৫০

কথা রাখলেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার পুলিশ সুপার

প্রকাশিত: ১০ জুলাই ২০১৯  

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পুলিশ লাইন্স ড্রিল শেডে আনুষ্ঠানিকভাবে পুলিশ কনস্টেবল পদের চূড়ান্ত ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে। চূড়ান্তভাবে ( ৩৯ জন পুরুষ, ৫৯ জন নারী ) মোট ৯৮ জন’কে মনোনীত করা হয়। আয়োজিত অনুষ্ঠানে চূড়ান্তভাবে কনস্টেবল পদে মনোনিতদের’কে পুলিশ সুপার ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান। অনুষ্ঠানে মনোনীত সদস্য ও তাদের অভিভাবকগণ নিজেদের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন। এ সময় অনুষ্ঠানস্থলে এক আবেগঘন পরিবেশের সৃষ্টি হয়। প্রতিক্রিয়া ব্যক্তকালে মনোনীত লিমা আক্তারের হতদরিদ্র কৃষক পিতা হানিফ মিয়া বলেন, আমার টাকা-পয়সা দেয়ার সামর্থ বা তদবীর করার কোন লোক ছিল না, স্বচ্ছ ও মেধার ভিত্তিতে নিয়োগ হওয়ায় টাকা এবং তদবীর ছাড়া আমার মেয়ের চাকরী হয়েছে বলে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন।
পুলিশ সুপার মোঃ আনোয়ার হোসেন খান, বিপিএম(বার), পিপিএম তার বক্তব্যে বলেন, শতভাগ মেধা ও যোগ্যতার ভিত্তিতেই কনস্টেবল পদে প্রার্থীদের’কে মনোনীত করা হয়েছে। মাননীয় প্রধান মন্ত্রী ও মাননীয় আইজিপি মহোদয়ের নির্দেশনা মোতাবেক আমরা ঘোষণা করেছিলাম, চাকরির জন্য সরকারি ফি’র অতিরিক্ত কোনো ব্যয় করতে হবে না। কোনো দালাল, প্রতারক চক্রের খপ্পরে না পড়তে বা বিশেষ কোনো ব্যক্তির প্ররোচণায় বিভ্রান্ত হয়ে অর্থ লেনদেন না করতে আমরা প্রতিটি থানা এলাকায় মাইকিং, লিফলেট বিতরণ ও সচেতনতা সভা করেছি, স্থানীয় পত্রিকা/ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় বিজ্ঞাপন প্রকাশ করে আপনাদের অনুরোধ করেছি, সতর্ক করেছি। আমরা কথা রেখেছি, চাকরির জন্য কাউকে অর্থ দিতে হয়নি, তাই যারা চাকরি পেয়েছেন, সততার সাথে দায়িত্ব পালন করবেন। মনোনীতদের অধিকাংশই দরিদ্র পরিবারের মেধাবী সন্তান। দরিদ্র পরিবারের মেধাবী ছেলে-মেয়েদের চাকরি দিতে পেরে আমরা গর্ববোধ করছি।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর