ব্রেকিং:
ব্রিটেনের প্রধান গির্জায় কোরআন তিলাওয়াতের বিরল ঘটনা স্মার্টফোনের বদলি হিসেবে ‘স্মার্ট গ্লাস’ আনছে ফেসবুক এডিআর বাড়িয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক আওয়ামী লীগের নেতারা দুর্নীতি করলে ছাড় নয়: কাদের জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাবাব ফাতেমা ভাবির পরকীয়া দেখে ফেলায় জীবন দিতে হলো দেবরকে সর্বোচ্চ শক্তি দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে হামলার হুমকি ইরানের বেশি খাস জমি উদ্ধারকারী ডিসিকে পুরস্কৃত করা হবে: ভূমিমন্ত্রী বকেয়া পরিশোধে সময় পাচ্ছে রবি-গ্রামীণফোন ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের ফাইনালে বাংলাদেশ স্বর্ণজয়ী রোমান সানার মায়ের চিকিৎসার দায়িত্ব নিলেন প্রধানমন্ত্রী জনগণের স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতে আন্তরিক সরকার: প্রধানমন্ত্রী আজ থেকে টানা তিন দিনের ছুটিতে আখাউড়া স্থল বন্দর ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শিক্ষার্থী সম্পৃক্তকরণ বিষয়ক কর্মসূচি অনুষ্ঠিত সরাইলে কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির জনসচেতনতামুলক সভা অনুষ্ঠিত নবীনগরে পূর্ব বিরোধের জেরে জেঠাতো ভাইকে কুপিয়ে আহত বিজয়নগরে মৌলিক সাক্ষরতার উদ্বোতকরণ প্রতিযোগীতার পুরষ্কার বিতরন নাসিরনগরে ১৫১টি মন্ডবে অনুষ্ঠিত হবে দুর্গাপূজা সরাইলে বিদ্যালয় মাঠে বাঁধ দিয়ে মাছ চাষ, পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু নাসিরনগরে বৃত্তি পেল ৫১ মেধাবী শিক্ষার্থী

বৃহস্পতিবার   ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৪ ১৪২৬   ১৯ মুহররম ১৪৪১

১৮৮৭

এ যাবৎকালে প্রিয়া সাহার যত অপতৎপরতা!

প্রকাশিত: ২৩ জুলাই ২০১৯  

বাংলাদেশে সংখ্যালঘু নির্যাতন নিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে অভিযোগ করে সম্প্রতি সমালোচনার শিকার হয়েছেন হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাংগঠনিক সম্পাদক প্রিয়া সাহা। এই সমালোচনা একেবারে নতুন হলেও তার বিরুদ্ধে রয়েছে আরও নানা অপতৎপরতার অভিযোগ।

জানা গেছে, ছাত্র জীবনে প্রিয়া সাহা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্র ইউনিয়ন করতেন, থাকতেন রোকেয়া হলে। শারি নামের একটি এনজিও আছে তার। তিনি ছিলেন মহিলা ঐক্য পরিষদ’র কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক। বিভ্রান্তিমূলক কর্মকাণ্ডের জন্য গতবছর তাকে মহিলা ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদকের পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়। এছাড়া তার বিরুদ্ধে বাংলাদেশের সংখ্যালঘুদের বাড়ি পুড়িয়ে দেওয়ার বিভিন্ন ঘটনা সাজিয়ে এর মাধ্যমে প্রচুর বিদেশি ফান্ড কালেক্ট করারও অভিযোগ রয়েছে।

এদিকে মহিলা ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালনকালে প্রিয়া সাহা অসহায় নারীদের জন্য সরকারের নারী বিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে কোটি কোটি টাকা অনুদান সংগ্রহ করেন। যদিও তা অসহায় নারীদের কল্যাণে ব্যবহার হতো খুব কমই। কোনো মহিলা আইনি ঝামেলা নিয়ে মহিলা ঐক্য পরিষদে সহযোগিতার জন্য প্রিয়া সাহার কাছে আসলে সেখানেও তিনি আর্থিক সুবিধা আদায় করতেন। যদিও মহিলা পরিষদের নিয়ম অনুযায়ী অসহায় নারীদের কাছ থেকে টাকা নেওয়ার কোনো নির্দেশনা নেই। এরকম অসংখ্য দুর্নীতি ও অনিয়ম করার কারণে প্রিয়া সাহাকে মহিলা ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ রয়েছে।

প্রিয়া সাহার এসব কর্মকাণ্ডে তার স্বামী দুর্নীতি দমন কমিশনে (দুদক) কর্মরত মলয় সাহার ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে সর্বত্র। জানা গেছে, যুক্তরাষ্ট্র সফরে প্রিয়া সাহাকে অফিসিয়াল গাড়ি ব্যবহার করে এয়ারপোর্টে পৌঁছে দেন তার স্বামী দুদক কর্মকর্তা মলয় সাহা।

জানা গেছে, প্রিয়ার দুই মেয়ে কয়েক বছর ধরে আমেরিকায় বসবাস করছেন। নাম প্রকাশ না করার শর্তে সাহা পরিবারের একজন নিকটাত্মীয় জানান, মলয় সাহা দুদকের সহকারী পরিচালক হওয়ার পরেই আঙ্গুল ফুলে কলা গাছ হয়েছেন। নামে-বেনামে মলয় সাহার রাজধানীর গুলশান ও বনানীতে একাধিক বাড়ি রয়েছে বলেও গুঞ্জন উঠেছে। রয়েছে সুইস ব্যাংকে শত কোটি টাকা। মলয় সাহা ও প্রিয়া সাহা একটু গরীব আত্মীয়দের দামি জায়গা জোর-জবরদস্তি ও হুমকি দিয়ে নিজেদের করে নেওয়ার কথাও জানায় ওই ব্যক্তি।

এছাড়া, দুদকে চাকরি প্রত্যাশী মলয় সাহার এক ঘনিষ্ঠজন জানান, দুদকে চাকরি দেওয়ার কথা বলে মলয় সাহা বিভিন্ন সময়ে একাধিক প্রার্থীর কাছ থেকে লাখ লাখ নিচ্ছেন প্রতি বছর।

সচেতন মহলের দাবি, প্রিয়া সাহার দেশ বিরোধী ষড়যন্ত্রের সঙ্গী হওয়ায় তার স্বামী মলয় সাহাকে অতিদ্রুত চাকুরী থেকে অব্যাহতি দিয়ে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হোক। তারা স্বামী-স্ত্রী মিলে শান্তিপূর্ণ এক বাংলাদেশকে অশান্ত করার পাঁয়তারায় লিপ্ত। মলয় সাহা ও প্রিয়া সাহারা সোনার বাংলাদেশকে নিয়ে গভীর ষড়যন্ত্রে লিপ্ত।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর