ব্রেকিং:
ব্রিটেনের প্রধান গির্জায় কোরআন তিলাওয়াতের বিরল ঘটনা স্মার্টফোনের বদলি হিসেবে ‘স্মার্ট গ্লাস’ আনছে ফেসবুক এডিআর বাড়িয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক আওয়ামী লীগের নেতারা দুর্নীতি করলে ছাড় নয়: কাদের জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাবাব ফাতেমা ভাবির পরকীয়া দেখে ফেলায় জীবন দিতে হলো দেবরকে সর্বোচ্চ শক্তি দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে হামলার হুমকি ইরানের বেশি খাস জমি উদ্ধারকারী ডিসিকে পুরস্কৃত করা হবে: ভূমিমন্ত্রী বকেয়া পরিশোধে সময় পাচ্ছে রবি-গ্রামীণফোন ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের ফাইনালে বাংলাদেশ স্বর্ণজয়ী রোমান সানার মায়ের চিকিৎসার দায়িত্ব নিলেন প্রধানমন্ত্রী জনগণের স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতে আন্তরিক সরকার: প্রধানমন্ত্রী আজ থেকে টানা তিন দিনের ছুটিতে আখাউড়া স্থল বন্দর ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শিক্ষার্থী সম্পৃক্তকরণ বিষয়ক কর্মসূচি অনুষ্ঠিত সরাইলে কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির জনসচেতনতামুলক সভা অনুষ্ঠিত নবীনগরে পূর্ব বিরোধের জেরে জেঠাতো ভাইকে কুপিয়ে আহত বিজয়নগরে মৌলিক সাক্ষরতার উদ্বোতকরণ প্রতিযোগীতার পুরষ্কার বিতরন নাসিরনগরে ১৫১টি মন্ডবে অনুষ্ঠিত হবে দুর্গাপূজা সরাইলে বিদ্যালয় মাঠে বাঁধ দিয়ে মাছ চাষ, পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু নাসিরনগরে বৃত্তি পেল ৫১ মেধাবী শিক্ষার্থী

বৃহস্পতিবার   ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৪ ১৪২৬   ১৯ মুহররম ১৪৪১

৮৩৭

এবি ব্যাংকের ১৩৩ কোটি টাকা আত্মসাৎ, দুদকের মামলা

প্রকাশিত: ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯  

এবি ব্যাংকের ১৩৩ কোটির বেশি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ব্যাংকটির দুই কর্মকর্তা ও এক ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।সোমবার দুদক প্রধান কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক মোহাম্মদ সিরাজুল হক বাদী হয়ে নগরীর হালি শহর থানায় এ মামলা করেন।  

হালিশহর থানার ওসি এসএম ওবায়দুল হক বলেন, মামলায় আসামি করা হয়েছে আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান চট্টগ্রামের মেসার্স ইয়াছির এন্টারপ্রাইজের মালিক মো. মোজাহের হোসেন, এবি ব্যাংকের সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট ও শাখা ব্যবস্থাপক মো. নাজির উদ্দিন এবং সাবেক সিনিয়র সহকারী ভাইস প্রেসিডেন্ট ও ক্রেডিট অ্যাডমিন মনিটরিং বিভাগের দায়িত্বে থাকা আজাদ হোসেনকে।

দুদকের চট্টগ্রাম সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত উপ-পরিচালক লুৎফুল কবির চন্দন বলেন, তিনজনের বিরুদ্ধে ১৩৩ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে মামলা দায়ের হয়েছে। ২০ ফেব্রুয়ারি মামলা দায়েরের অনুমোদন দেয়া হয়। দুদকের প্রধান কার্যালয় থেকে অনুসন্ধানের ভিত্তিতে মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। 

মামলায় অভিযোগ বলা হয়েছে, মেসার্স ইয়াসির এন্টারপ্রাইজের মালিক মো. মোজাহের হোসেন এক কোটি ৮০ লাখ টাকার সম্পদ জামানতের বিপরীতে দুইটি আমদানি ঋণপত্র (এলসি) খোলেন। এর মধ্যে একটি ফরেন, অন্যটি লোকাল। ফরেন এলসির মাধ্যমে বিদেশ থেকে প্রায় ১০০ কোটি টাকার খাদ্যপণ্যসহ বিভিন্ন ধরনের পণ্য আমদানি করা হয়। ওই পণ্যের মূল্য বাবদ রফতানিকারক প্রতিষ্ঠানকে এবি ব্যাংক থেকে আমদানিমূল্য পরিশোধ করা হয়। কিন্তু সেই টাকা ইয়াসির এন্টারপ্রাইজ এবি ব্যাংকে জমা দেয়নি। আবার আমদানি পণ্য দেশের বাজারে বিক্রি করার পরও সেই টাকা পায়নি ব্যাংক। ঋণ ও সুদসহ ১৩৩ কোটি ১৮ লাখ ৯২ হাজার ৬১৭ টাকা গ্রাহক ও ব্যাংক কর্মকর্তারা যোগসাজশে আত্মসাৎ করেছেন। 

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
এই বিভাগের আরো খবর