ব্রেকিং:
প্রতিদিন কয়েকবার গরম পানির ভাপ নিয়েছি করোনায় ব্যতিক্রমী উদ্যোগ এমপিওভুক্তির সুখবর পেল ১৬৩৩ স্কুল-কলেজ ২০ হাজারের বেশি আইসোলেশন শয্যা প্রস্তুত রয়েছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে মানুষ, দৃষ্টান্ত স্থাপন করে চলেছে বৈশ্বিক ক্রয়াদেশ পূরণে সক্ষম বাংলাদেশ ॥ শেখ হাসিনা লোকসান ঠেকাতে সরাসরি ক্ষেত থেকে সবজি কিনছে সেনাবাহিনী করোনা পরীক্ষায় দেশে চালু হলো প্রথম বেসরকারি ল্যাব যে দোয়ার আমলে স্মরণশক্তি বৃদ্ধি পাবে ইনশাআল্লাহ! আল্লাহ তিন ধরনের লোকের দোয়া ফিরিয়ে দেন না করোনা রোগীদের বাড়ি প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ উপহার ভেন্টিলেটর-সিসিইউ স্থাপনে জরুরি প্রকল্প বঙ্গবন্ধুর মতো নেতা পৃথিবীতে খুব কম দেখা যায়: ট্রাম্প গবেষণা প্রটোকল জমা না দিয়েই বিষোদগার করছেন জাফরুল্লাহ জাতিসংঘের বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচিতে নিয়োগ করোনা আক্রান্তের শরীরের অক্সিজেনের পরিমাণ ঘরেই পরীক্ষার উপায় মধ্যবিত্তরাও খাদ্যসহায়তার আওতায়: শিল্প প্রতিমন্ত্রী কর্মস্থল ত্যাগকারীদের তালিকা চায় মন্ত্রণালয় নাসিরনগরে শিশু নিহতের ঘটনায় গ্রেফতার ২ দেশে ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড সংখ্যক আক্রান্ত, আরো ৮ মৃত্যু
  • শনিবার   ০৬ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২৩ ১৪২৭

  • || ১৩ শাওয়াল ১৪৪১

৩১৮

আওয়ামী লীগের ইশতেহার সুদূরপ্রসারী ও কর্মসংস্থান বান্ধব

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া

প্রকাশিত: ১৯ ডিসেম্বর ২০১৮  

বিশিষ্ট জনেরা আওয়ামী লীগের নির্বাচনী ইশতেহারকে সুদূরপ্রসারী এবং কর্মসংস্থান বান্ধব বলে অভিহিত করেছেন।

আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মঙ্গলবার রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে আগামী ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিতব্য একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে তার দলের নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করেন। এ ইশতেহারকে সময়োপযোগী হিসাবে অভিহিত করার পাশাপাশি উচ্চতর প্রবৃদ্ধি অর্জন ও অন্তর্ভুক্তিমূলক উন্নয়নে এটি সহায়ক হবে উল্লেখ করে অঙ্গীকারগুলো যথাযথভাবে বাস্তবায়নের উপর গুরুত্বারোপ করেন বিশিষ্ট জনেরা।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও লাখ লাখ শহীদের স্বপ্ন পূরণের লক্ষ্যে বাংলাদেশকে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত এবং শিক্ষিত ও অসাম্প্রদায়িক জাতি গড়ে তুলতে ইশতেহারে দুইটি কৌশলগত পরিকল্পনার আওতায় ৩৩টি খাতের উপর গুরুত্বারোপ করা হয়েছে।

ইশতেহারে আগামী ৫ বছরে জিডিপি প্রবৃদ্ধি ১০ শতাংশে উন্নীতকরণ এবং ১ কোটি ২৮ লাখ নতুন কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক এই ইশতেহারকে দেশের উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা বাস্তবায়নের দলিল হিসাবে অভিহিত করেন। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ তাদের অতীতের অভিজ্ঞতা থেকে এই ইশতেহার ঘোষণা করেছে। তারা চলমান উন্নয়ন কর্মকাণ্ড ও দেশের ভবিষ্যৎ অবস্থার একটি পূর্ণাঙ্গ চিত্র দিচ্ছেন। এই ইশতেহারের মাধ্যমে উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের লক্ষ্যে বাংলাদেশ সামনের দিকে এগিয়ে যাবে।

আওয়ামী লীগ দেশের উন্নয়নের বর্তমান, অতীত ও ভবিষ্যৎ ইস্যুগুলোকে ধারণ করছে উল্লেখ করে বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. আতিউর রহমান এই ইশহেতারকে সময়োপযোগী ও সমন্বিত বলে অভিহিত করেন। তিনি বলেন, এই ইশতেহারটি সুদূরপ্রসারী এবং কর্মসংস্থান বান্ধব। এই ইশতেহারের মাধ্যমে নতুন উদ্যোক্তা ও কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টির দিক-নির্দেশনা দিয়েছে আওয়ামী লীগ।

তিনি আরো বলেন, দেশের সকল খাতে স্বচ্ছতা, ন্যায়পরায়ণতা ও প্রযুক্তিবান্ধব পরিবেশ নিশ্চিতের মাধ্যমে উচ্চতর ও অন্তর্ভুক্তিমূলক প্রবৃদ্ধি অর্জনে এই ইশতেহার সহায়ক হবে।

অর্থনীতিবিদ ড. মুস্তাফা কে. মুজেরি বলেন, স্বাস্থ্য, শিক্ষা, গণতন্ত্র ও সুশাসনসহ সকল খাতে এই ইশহেতার পরিবর্তন আনবে। এই ইশতেহার বাস্তবায়নের মাধ্যমে আমরা আগামী বছরগুলোতে সকল ক্ষেত্রে একটি ইতিবাচক পরিবর্তন দেখতে পাবো।

এফবিসিসিআই সভাপতি শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন বলেন, দেশের উন্নয়ন ও অর্থনীতির জন্য এই ইশতেহারটি ইতিবাচক- কেননা দুর্নীতিমুক্ত দেশ গঠনের ব্যাপারে আওয়ামী লীগ প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
আলোকিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া
পাঠকের চিন্তা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর